রবিবার, ১৪ Jul ২০২৪, ০৪:১৬ অপরাহ্ন

বিজ্ঞাপন :
সংবাদিক নিয়োগ! আপনি যদি সাংবাদিকতা এবং প্রতিবেদনে অভিজ্ঞ হন এবং ব্রেকিং নিউজ থেকে প্রাথমিক প্রতিবেদন তৈরি করার জন্য আগ্রহী হন, তবে সম্মানিত সংবাদ সংস্থা তে আপনার জন্য সুযোগ আছে। সংবাদিক মান্যতা এবং প্রতিবেদন ক্ষমতা সাথে জয়েন করুন।
সংবাদ শিরোনাম
সুনামগঞ্জে নবাগত পুলিশ সুপারের সাথে প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক্স মিডিয়ার সংবাদিকদের মতবিনিময় রায়পুরায় উপজেলা প্রশাসনের অনুষ্ঠান বয়কট করেছে স্থানীয় সাংবাদিকরা স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রনালয় মাননীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডাঃ সামন্ত লাল সেন’কে সংবর্ধনা প্রদান নরসিংদী সদর প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মাসুদ রানা বাবুলকে সম্বর্ধনা নরসিংদী জেলা পুলিশের অভিযানে ৩ শত ৪০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধারসহ গ্রেফতার ৩। তৃতীয় দফা বন্যার মুখোমুখি সুনামগঞ্জের হাওরপাড়ের লাখ লাখ মানুষজন চালককে হত্যা করে ব্যাটারি চালিত রিক্সা ছিনিয়ে নেয়ার ঘটনার রহস্য উদঘাটন করেছে নরসিংদী জেলা পুলিশ। নরসিংদী পৌরসভার ঘোষপাড়া পূর্ব শত্রুতার জেরে দোকানে হামলা, লুটপাটের অভিযোগ। দিঘলিয়া এম এ মজিদ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ৯১ ব্যাচের শিক্ষার্থী ও ঢাকা আশুলিয়া রিপোর্টার্স ক্লাবের সভাপতি মোঃ কামাল হোসেন এর পিতার মৃত্যুতে আমরা শোকাহত। অপরাধী যে কেউ হোক তাকে আইনের আওতায় আনা হবে, ইন্ধন দাতাদেরও রক্ষা নেই, পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমান (পিপিএম)।

চালককে হত্যা করে ব্যাটারি চালিত রিক্সা ছিনিয়ে নেয়ার ঘটনার রহস্য উদঘাটন করেছে নরসিংদী জেলা পুলিশ।

চালককে হত্যা করে ব্যাটারি চালিত রিক্সা ছিনিয়ে নেয়ার ঘটনার রহস্য উদঘাটন করেছে নরসিংদী জেলা পুলিশ।

আর এ লায়ন সরকার নরসিংদী জেলা প্রতিনিধি।

মাধবদী থানায় অজ্ঞাতনামা আসামিদের কর্তৃক চালককে হত্যা করে ব্যাটারি চালিত রিক্সা ছিনিয়ে নেয়ার ঘটনার রহস্য উদঘাটন, মালামাল উদ্ধার ও আসামী গ্রেফতার সংক্রান্তে মিডিয়া ব্রিফিং

গত ১৬ জুন তারিখ নরসিংদী শহরের নতুন বাসস্ট্যান্ড থেকে মদনপুরগামী রাস্তার মাধবদী থানাধীন দামের ভাওলা এলাকার ৫ নং ব্রিজের আনুমানিক ২০০ গজ পূর্বদিকে দামের ভাওলামুখী কাঁচা রাস্তায় একটি বড়ই গাছের সাথে গামছা দিয়ে বাধা অবস্থায় ব্যাটারি চালিত অটোরিকশার চালক মোঃ নুরুল ইসলামের মৃতদেহ পাওয়া যায়।

১৫ জুন ২০২৪ মাধবদী থানার ভাটপাড়ার বাসিন্দা মো: নুরুল ইসলাম তার ব্যাটারি চালিত রিকশা নিয়ে নিজ বাড়ি থেকে বের হয়। ঐদিন রাত ৮:৩০ ঘটিকার দিকে মো: নুরুল ইসলাম তার ভাইকে মোবাইল ফোনে জানায় তার ব্যাটারি চালিত রিকশাটি অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিরা তার কাছ থেকে ছিনিয়ে নিয়ে যাচ্ছে। সংবাদ পেয়ে তার আত্মীয়-স্বজন খোঁজাখুঁজির এক পর্যায়ে ১৬ জুন ২০২৪ তারিখ সকাল আনুমানিক ৬:০৫ ঘটিকার সময় উপরোল্লেখিত স্থানে তার মৃতদেহ পাওয়া যায়। এর প্রেক্ষিতে গত ১৯ জুন ২০২৪ তারিখ মৃতের স্ত্রী শিউলি বেগম এর লিখিত অভিযোগের প্রেক্ষিতে অজ্ঞাতনামা আসামিদের বিরুদ্ধে মাধবদী থানায় হত্যা মামলা রুজু করা হয়।

ঘটনার পরপরই পুলিশ সুপার, নরসিংদী জনাব মোহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমান পিপিএম ঘটনার সাথে জড়িত ব্যক্তিদের দ্রুত চিহ্নিত করে গ্রেফতার করে আইনের আওতায় নিয়ে আসার নির্দেশনা প্রদান করেন। উক্ত নির্দেশনার প্রেক্ষিতে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সদর সার্কেল জনাব কে এম শহিদুল ইসলাম সোহাগ এর তত্ত্বাবধানে অফিসার ইনচার্জ মাধবদী থানা মোহাম্মদ কামরুজ্জামান এর নেতৃত্বে তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মোঃ রিয়াজ উদ্দিন রনিসহ মাধবদী থানা পুলিশ জড়িত আসামিদের সনাক্তকরণ, ছিনতাইকৃত ব্যাটারি চালিত রিকশা উদ্ধারে অভিযান শুরু করে।

অভিযানের একপর্যায়ে ৯ জুলাই ২০২৪ তারিখ মাধবদি থানার একটি টিম হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত আসামি বাচ্চু মিয়া (২৭) কে মাধবদী থানা এলাকা থেকে গ্রেফতার করে। তার দেয়া তথ্য মতে অভিযান পরিচালনা করে নরসিংদী ও নারায়ণগঞ্জ জেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে একই দিনে ঘটনার সাথে জড়িত সহযোগী আসামী হৃদয়, সোহেল এবং নবী হোসেনকে গ্রেফতার করে মাধবদী থানা পুলিশ। গ্রেফতারকৃত আসামিরা হত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে।

১৫ জুন ২০২৪ তারিখ রাত আটটার দিকে নরসিংদী শহরের সাহেপ্রতাব থেকে গ্রেফতারকৃত বাচ্চু মিয়া, হৃদয় এবং সোহেল ডিসি মোঃ নুরুল ইসলাম এর ব্যাটারি চালিত রিক্সায় যাত্রী হিসেবে ওঠে। রিকশায় ঘোরাঘুরির এক পর্যায়ে ঘটনাস্থলে আসার পর আসামিরা ডিসি মো: নুরুল ইসলাম কে বরই গাছের সাথে পায়ে, পেটে এবং গলায় গামছা দিয়ে শক্তভাবে বেঁধে হত্যা করে তার ব্যাটারি চালিত রিকশাটি ছিনিয়ে নিয়ে যায়।

পরে তারা ৩ জন লুষ্ঠিত ব্যাটারি চালিত রিকশাটি নিয়ে নবী হোসেনের কাছে ১৫০০০ টাকায় বিক্রি করে সেই টাকা নিজেদের মধ্যে ভাগ বাটোয়ারা করে। আসামি নবী হোসেন ব্যাটারি চালিত রিকশাটি ক্রয় করার সাথে সাথেই এর কিছু যন্ত্রাংশ আলাদা আলাদা খুলে বিভিন্ন জায়গায় বিক্রি করে।

গ্রেফতারের পর আসামী নবী হোসেনের বাড়ি থেকে ছিনতাইকৃত ব্যাটারি চালিত রিকশার ২টি ব্যাটারি, একটি চাকা এবং একটি হেডলাইট সংযুক্ত মিটার বক্স উদ্ধার করে মাধবদী থানা পুলিশ। গ্রেফতারকৃত আসামিদের

মধ্যে বাচ্চু মিয়া ৯ জুলাই ২০২৪ তারিখ এবং আসামি সোহেল, হৃদয় ও নবী হোসেন ১০ জুলাই ২০২৪ তারিখ ফৌজদারী

কার্যবিধি ১৬৪ ধারায় নিজেদের দোষ স্বীকার করে বিজ্ঞ আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী প্রদান করে বর্তমানে জেল
হাজতে রয়েছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন :

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত